কানাডাতে হিউম্যানিট্যারিয়ান এ্যান্ড কমপ্যাশনেট গ্রাউন্ডে আবেদন।

0
163

মো: হাসান সাজ্জাদ ইকবাল:   আমার অনেক ক্লায়েন্ট ধারনা করে, কানাডাতে মনে হয় হিউম্যানিট্যারিয়ান এ্যান্ড কমপ্যাশনেট গ্রাউন্ডে আবেদন করলেই সেটি এ্যাকসেপ্ট হবে এবং তারা পার্মানেন্ট রেসিডেন্সি পাবেন। কিন্তু এ্যাই গ্রাউন্ডে আসলে কানাডিয়ান বিচারকরা কি কি বিবেচনা করেন, সেটি জানা থাকলে অনেকের সুবিধা হয়। সর্বপ্রথম মনে রাখতে হবে রিফিউজি হিসাবে আবেদনের সাথে হিউম্যানিট্যারিয়ান এ্যান্ড কমপ্যাশনেট গ্রাউন্ডে আবেদনের মধ্যে বিবেচ্য বিষয়ে অনেক পার্থক্য রয়েছে, প্রথমটিতে দেখা হয় তার নিজ দেশ অথবা হ্যাবিচুয়াল আবাসস্থলে কি কি ধরনের নিরাপত্তা জনিত সমস্যা আছে যার কারনে উনি অস্বাভাবিক রকম জানমালের নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন, কিন্তু দ্বিতীয় ক্ষেত্রে দেখা হয় কানাডা থেকে ডিপোর্ট করলে কারও নিজের, পরিবারের বা সন্তানদের কি কি ধরনের অস্বাভাবিক বা মোটা দাগের সমস্যা হতে পারে।
রেসিডেন্সি শর্ত পূরন হয়নি এমন একজন বাংলাদেশি ভাইয়ের ব্যাপারটা নিয়ে আলোচনা করা যাক।উনি ১০ বছর আগে পরিবার সহ পার্মামেন্ট রেসিডেন্ট হিসাবে কানাডাতে আসেন। কয়েকমাস থাকার পরে পরিবার সন্তান রেখে দেশে চলে যান, আবার বাংলাদেশে বেশ কিছুদিন কাটান এবং কানাডাতে এসে আবার কিছুদিন পরে চলে যান-এই হলো তার গতিবিধির প্যাটার্ন। ফলে যেখানে ৫ বছরের মধ্যে ০২ বছর থাকার যে শর্ত আছে, সেটি তার পূরন হয় নাই এবং এখন তার পার্মানেন্ট রেসিডেন্সি বাতিল হয়ে যাবে, তাই উনি হিউম্যানিট্যারিয়ান এ্যান্ড কমপ্যাশনেট গ্রাউন্ডে আবেদন করেছেন। বিচারক মহোদয় নিম্নোক্ত বিষয়গুলো বিবেচনা করবেন:
১. ভদ্রলোকের রেসিডেন্সি শর্ত পূরনের ব্যর্থতার পরিমান ও মাত্রা।
২. উনার কানাডা থেকে দেশে যাওয়ার কারন।
৩. কি কি কারনে উনি নিজ দেশে দীর্ঘদিন ধরে থেকেছেন?
৪. উনি কি কানাডাতে ফিরে আসার জন্য আন্তরিকভাবে চেষ্টা করেছেন?
৫. কানাডাতে উনার সংশ্লেষ কতখানি বা উনি কি কানাডাতে এমনভাবে প্রতিষ্ঠা পেয়েছেন যে উনাকে ডিপোর্ট করলে অপরিমেয় ক্ষতি হয়ে যাবে অথবা কানাডার সমাজে বা অর্থনীতিতে একটা প্রভাব পড়বে।
৬. কানাডাতে ভদ্রলোকের কোন পারিবারিক বন্ধন আছে কিনা?
৭. অপ্রাপ্তবয়ষ্ক বাচ্চাদের কোন বড় ধরনের ক্ষতি হবে কিনা যদি তাদেরকে নিজ দেশে ডিপোর্ট করা হয়।

মনে রাখতে হবে রিফুউজি হিসাবে আপনার আবেদন যদি প্রত্যাক্ষিত হয়, অথবা আপনি যদি রিফুউজি আবেদন মাঝপথে তুলে নেন অথবা আবেদন করে আর খবরই নিলেন না এবং শেষমেশ আবেদনটি পরিত্যক্ত হয়ে গ্যাল, তাহলে কিন্তু ১২ মাসের মধ্যে হিউম্যানিট্যারিয়ান এ্যান্ড কমপ্যাশনেট গ্রাউন্ডে আবেদন করতে পারবেন না। এইজন্য অনেকে হিউম্যানিট্যারিয়ান এ্যান্ড কমপ্যাশনেট গ্রাউন্ডে আগে আবেদন করে।

মো: হাসান সাজ্জাদ ইকবাল, কানাডিয়ান রেগুলেটেড ইমিগ্রেশন কনসালটেন্ট, সুইট ১১২, ৩০০০ ড্যানফোর্ট এ্যাভিনিউ, ইউনিট ৩, ফোন ৬৪৭৩৯০২৬৬৮, ইমেইল info.broadviewimmigration.com, www.broadviewimmigration.com

LEAVE A REPLY