তুর্কি সেনাদের হাতে ৮০০ সন্ত্রাসী নিহত

0
210

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ সিরিয়ার আফরিনে তুরস্কের সেনা অভিযানে এ পর্যন্ত পিকেকে, ওয়াইপিজিও দায়েশের প্রায় ৮০০ সন্ত্রাসী নিহত হয়েছে। তুর্কিশ আর্মড ফোর্সের (টিএসকে) বরাত দিয়ে বৃহস্পতিবার এ খবর দিয়েছে তুরস্কের রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম আনাদলু এজেন্সির।

টিএসকে জানিয়েছে, অভিযানে সন্ত্রাসীদের বহু আস্তানাও ধ্বংস করা হয়েছে। এছাড়া বিমান হামলার মাধ্যমে সন্ত্রাসীদের কয়েকটি অস্ত্রভাণ্ডার ধ্বংস করা হয়েছে। অভিযানে সেনাবাহিনী যাতে সাধারণ নাগরিকদের ক্ষয়ক্ষতি না হয় সেদিকে সজাগ দৃষ্টি রাখছে বলে দাবি করেছে টিএসকে।

উল্লেখ্য, গত ২০ জানুয়ারি থেকে তুর্কি সেনাবাহিনী সিরিয়ার আফরিনে অভিযান পরিচালনা করছে। আফরিন এলাকা পিকেকে ও দায়েশ যোদ্ধাদের নির্মূলে এ অভিযান পরিচালনা করছে তুর্কি বাহিনী। তবে আফরিন থেকে অভিযান বিস্তৃত করে তুর্কি সেনারা আজাজ শহরের দিকে অগ্রসর হবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যিপ এরদোগান।

এদিকে সিরিয়ায় অভিযান চলমান অবস্থায় এবার কাতারে বিমান ও নৌবাহিনী মোতায়েন করার পরিকল্পনার কথা জানিয়েছে তুরস্ক। কাতারে নিযুক্ত তুর্কি রাষ্ট্রদূত ফিকরেত ওজের বুধবার এ কথা জানিয়েছেন।

কাতারে আগেই স্থলবাহিনী মোতায়েন করেছে তুরস্ক। তবে কবে নাগাদ বিমান ও নৌবাহিনীর সদস্যদের মোতায়েন করা হবে, তা জানাতে অস্বীকার করেছেন তুর্কি রাষ্ট্রদূত। খবর আল জাজিরার।

ফিকরেত ওজের জানান, ২০১৪ সালে সই হওয়া চুক্তি অনুসারে কাতারে স্থল, নৌ ও বিমানবাহিনী মোতায়েন করা হবে। সিরিয়ায় চলমান সামরিক অভিযান ‘অলিভ ব্রাঞ্চ’ সম্পর্কে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা জানান।

LEAVE A REPLY