সিলেটের টিলাগড়ে অভ্যন্তরীণ কোন্দলের জের ধরে ছাত্রলীগের এক কর্মীকে কুপিয়ে হত্যা।

0
129
নিহত ছাত্রলীগ কর্মী তানিম খান

  সিলেট  প্রতিনিধি: সিলেট নগরে ছাত্রলীগের এক কর্মীকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। আজ রোববার রাত সাড়ে নয়টার দিকে টিলাগড় মোড়ে এ ঘটনা ঘটে।

প্রতিপক্ষের লোকজন তাঁকে কুপিয়ে হত্যা করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। নিহত ছাত্রলীগ কর্মীর নাম তানিম খান (২৪)। সিলেট সরকারি কলেজের ডিগ্রি তৃতীয় বর্ষের ছাত্র তানিম টিলাগড় এলাকায় ছাত্রলীগের এক পক্ষের সক্রিয় কর্মী ছিলেন। ৪ জানুয়ারি ছাত্রলীগের দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটে। ওই ঘটনার জের ধরে রোববার রাতে তানিমকে কুপিয়ে হত্যার ঘটনা ঘটেছে বলে তাঁর সহপাঠীরা জানিয়েছেন।

সিলেট মহানগর পুলিশের শাহপরান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আখতার হোসেন তানিমকে হত্যার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। অতর্কিত হামলা করে মাথায় এলোপাতাড়ি কুপিয়ে তাঁকে হত্যা করা হয় বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

তানিমের বাড়ি সিলেটের ওসমানীনগর উপজেলার তাজপুরে। তিনি টিলাগড় এলাকার একটি মেসে বাস করতেন। এমসি কলেজকেন্দ্রিক টিলাগড় এলাকায় ছাত্রলীগের দুই পক্ষের মধ্যে তানিম আওয়ামী লীগের রণজিৎ সরকার পক্ষের সক্রিয় কর্মী ছিলেন।

জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহসাধারণ সম্পাদক সঞ্জয় চৌধুরী জানিয়েছেন, রাত সাড়ে নয়টার দিকে তানিমের ওপর অতর্কিত হামলা হয়। হামলাকারীরা তানিমের মাথায় এলোপাতাড়ি কুপিয়ে চলে যায়। ঘটনাস্থলেই তানিম মারা যায়।

রাত পৌনে ১০টার দিকে তানিমের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে নিয়ে যায় পুলিশ। এ সময় তানিমের সহপাঠীসহ ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা ছিলেন। তাঁদের অনেককে কান্নাকাটি করতে দেখা যায়। হাসপাতালে লাশের সঙ্গে থাকা ছাত্রলীগের কয়েকজন কর্মী জানান, ৪ জানুয়ারি এমসি কলেজে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদ্‌যাপন নিয়ে যে সংঘর্ষ হয়েছিল, তার জের ধরে এ ঘটনা ঘটেছে। ছাত্রলীগে টিলাগড়কেন্দ্রিক বিভক্তি ও দ্বন্দ্বে গত এক বছরে এ নিয়ে পাঁচটি হত্যার ঘটনা ঘটেছে।

LEAVE A REPLY